ক সঙ্গে পাঁচটি মোবাইল ফোন এনেছে নকিয়া। মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেসে এইচএমডি গ্লোবাল ফ্লাগশিপ নকিয়া সিরাকোসহ চারটি অ্যান্ড্রয়েড ফোন উন্মোচন করেছে। পাশাপাশি নতুন ফিচার ফোন ৮১১০ এরও দেখা মিলেছে।

নকিয়ার প্রতিটি ফোনই এখন থেকে গুগল অ্যান্ড্রয়েড ওয়ান প্রজেক্টের অংশ। এর মানে দ্রুত অ্যান্ড্রয়েড আপডেট পাওয়া যাবে সরাসরি গুগলের কাছ থেকে।

নকিয়ার নতুন ফ্ল্যাগশিপ নকিয়া ৮ সিরোকো। ফোনটিতে থাকছে ৫ দশমিক ৫ ইঞ্চি পিওলেড ডিসপ্লে, যার রেজুলেশন ২৫৬০ x ১৪৪০পিক্সেল।

এটির কেন্দ্রে রয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৩৫ প্রসেসর, ৬ গিগাবাইট র‌্যাম ও ১২৮ গিগাবাইট স্টোরেজ।

ফোনটির পেছনে রয়েছে ১২ মেগাপিক্সেল রেজুলেশনের ডুয়াল ক্যামেরা, যার লেন্স তৈরি করেছে স্বনামধন্য নির্মাতা জাইস। সামনে দেয়া হয়েছে ৫ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। ক্যামেরাপ্রেমীদের জন্য রয়েছে ম্যানুয়াল ক্যামেরা কন্ট্রোল।

তবে ফোনটিতে হেডফোন জ্যাক বাদ পড়লেও যুক্ত হয়েছে তারহীন চার্জিং সুবিধা।

হেডফোন ব্যবহার করতে হলে তারহীন বা ইউএসবি সি কনভার্টার ছাড়া গতি নেই। ফোনটির মূল্য ধরা হয়েছে ৯২০ ডলার, পাওয়া যাবে আগামী এপ্রিলে।

যারা প্রায় হাজার ডলার দিয়ে ফোন কিনতে নারাজ তাদের জন্য রয়েছে নকিয়া ৭ প্লাস। নকিয়া ৮ সিরোকোর ক্যামেরা যারা মাঝারি বাজেটে পেতে চান তাদের জন্য তৈরি করা হয়েছে এটি।

এতে আছে নকিয়া ৮ সিরোকোর ডুয়াল ক্যামেরা, ১৮:৯ অনুপাতের ৬ ইঞ্চি ডিসপ্লে আর কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৬০ প্রসেসর।

ফোনটির ডিসপ্লে রেজুলেশন ২১৬০ x ১০৮০ পিক্সেল। ডিসপ্লে তৈরিতে ব্যবহার করা হয়েছে আইপিএস এলসিডি প্রযুক্তি। মূল্য ধরা হয়েছে ৪৯০ ডলার।

এইচএমডি গ্লোবালের প্রথম ফোন নকিয়া ৬-এর নতুন সংস্করণও উন্মোচন করা হয়েছে মোবাইল কংগ্রেসে ।

নতুন মডেলে রয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৩০ প্রসেসর, ৩ অথবা ৪ গিগাবাইট র‌্যাম, ৩২ অথবা ৬৪ গিগাবাইট স্টোরেজ।

ফোনটিতে দেয়া হয়েছে ৫ দশমিক ৫ ইঞ্চি ফুল এইচডি ডিসপ্লে। পেছনে রয়েছে ফিংগারপ্রিন্ট সেন্সর ও ১৬ মেগাপিক্সেল জাইস লেন্সযুক্ত ক্যামেরা। এটির মূল্য ৩৪৩ ডলার।

একদম বাজেট কম যাদের তাদেরকেও হতাশ করেনি এক সময়ের জনপ্রিয় ব্র্যান্ডটি। তুলনামূলক কম মূল্যে বাজারে এনেছে নকিয়া ১।

অ্যান্ড্রয়েড গো অপারেটিং সিস্টেমচালিত ডিভাইসটিতে রয়েছে মিডিয়াটেক কোয়াডকোর প্রসেসর, ১ গিগাবাইট র‌্যাম, ৮ গিগাবাইট স্টোরেজ।

৪ দশমিক ৫ ইঞ্চি ডিসপ্লের রেজুলেশন ৮৪৫ x ৪৮০ পিক্সেল। পেছনে দেওয়া হয়েছে ৫ মেগাপিক্সেল ও সামনে রয়েছে ২ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা।

ফোনটির পেছনের কভার সহজেই বদল করা যাবে। এটির মূল্য ধরা হয়েছে ৮৫ ডলার।

এসব স্মার্টফোনের পাশাপাশি ফিচার ফোন ৮১১০ উন্মোচন করা হয়েছে। দ্য ম্যাট্রিক্স চলচিত্রের জন্য বিখ্যাত নকিয়া ৮১১০-এর নতুন সংস্করণটিও দেখতে অনেকটা পুরোনোটির মত।

ফিরে এসেছে কিপ্যাডের ওপর স্লাইডিং কভার, কলার মত বাঁকানো বডি। যুক্ত হয়েছে ২ দশমিক ৪ ইঞ্চি কালার ডিসপ্লে।

পেছনে ২ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা, ওয়াইফাই হটস্পট সুবিধা ও ফোরজি নেটওয়ার্কও মিলবে এতে।

ফোনটিতে রয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ২০৫ প্রসেসর, ৫১২ মেগাবাইট র‌্যাম। আর ফোনটিতে চলবে স্মার্টফিচার ওএস।

এতে স্মার্টফোনের মত শক্তিশালী অ্যাপ না চালানো গেলেও কিছু ছোট ছোট অ্যাপ পাওয়া যাবে। মূল্য ধরা হয়েছে ৯৭ ডলার।

সব মিলিয়ে নকিয়া ২০১৮ সালে শক্তিশালীভাবে শুরু করতে যাচ্ছে। এখন ডিভাইসগুলো বাজারে আসার পালা। দেখা যাক এ ব্র্যান্ড হারানো সাম্রাজ্য কতটা ফিরে পায়।

সূত্র : নকিয়ার মোবাইল ওয়ার্লড কংগ্রেস ইভেন্ট



Source link

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here